media

সাংবাদিকদের টেকসই নিরাপত্তা ও সুরক্ষার জন্য একটি অভিন্ন নীতি কাঠোমো গড়ে তোলা প্রয়োজন বলে মনে করেন সম্পাদক, সাংবাদিক, শিক্ষাবিদ ও অধিকারকর্মীরা।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর ব্র্যাক ইন সেন্টারে ‘সাংবাদিকদের নিরাপত্তা ও সুরক্ষা বিষয়ক আঞ্চলিক সংলাপ’ শীর্ষক আলোচনায় এমন অভিমত ব্যক্ত করেন তারা। এতে বাংলাদেশ ও দক্ষিণ এশিয়ার কয়েকটি দেশের সাংবাদিক ও গণমাধ্যম বিশেষজ্ঞরা অংশ নেন।
সম্পাদক পরিষদ আয়োজিত এ সংলাপে বক্তারা বলেন, শারীরিক, মনস্তাত্ত্বিক, আইনগত—এমনকি ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহারের ক্ষেত্রেও সংবাদকর্মীদের নিরাপত্তা সমান গুরুত্বপূর্ণ।

সংলাপে সাংবাদিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ, স্থানীয় ও জাতীয় পর্যায়ের প্রিন্ট, ইলেকট্রনিক, অনলাইন মিডিয়ার সাংবাদিক, শিক্ষাবিদ, সুধীসমাজের প্রতিনিধি ও বিশেষজ্ঞরা অংশ নেন।

অনুষ্ঠানে তারা বলেন, সাংবাদিকদের নিরাপত্তা প্রদানের নীতিমালা সংশ্লিষ্ট সব মহলের যৌথ প্রচেষ্টার আলোকে তৈরি করতে হবে। সম্পাদক পরিষদ, সংবাদপত্র মালিকদের সংগঠন নিউজপেপার ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন, প্রেস ইনস্টিটিউট অব বাংলাদেশ, সাংবাদিক ইউনিয়নগুলো, জাতীয় প্রেস ক্লাব, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিসহ অন্যান্য সংশ্লিষ্ট কমিটি ও প্রতিষ্ঠানকে এ কাজে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।

অনুষ্ঠানে ইন্টারন্যাশনাল মিডিয়া সাপোর্টের এশিয়ার আঞ্চলিক উপদেষ্টা শ্রীলঙ্কার রাংগা কালানসুরিয়া, ভারতের রানা আইয়ুব, যুক্তরাজ্যের মিডিয়া লিগ্যাল ডিফেন্স ইনিশিয়েটিভসের নির্বাহী প্রধান লুসি ফ্রিম্যান অংশ নেন।

সংলাপে সম্পাদক, প্রকাশক ও সাংবাদিক ইউনিয়ন নেতা প্রবীণ সাংবাদিক রিয়াজউদ্দিন আহমেদ সভাপতি ও মডারেটরের দায়িত্ব পালন করেন। সম্পাদক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ডেইলি স্টার সম্পাদক মাহফুজ আনাম স্বাগত বক্তব্য দেন এবং সাংবাদিকদের নিরাপত্তা প্রটোকলের বিষয়টি উপস্থাপন করেন। -প্রেস বিজ্ঞপ্তি।