polok

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী বলেছেন, ৯ বছর আগে আইসিটি (তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি খাত) থেকে মাত্র ২৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আয় হতো। এখন ৮০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলারেরও অধিক রফতানি আয় করতে সক্ষম হয়েছি। ২০১৮ সাল নাগাদ বেসিসের (বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেসের) ওয়ান বাংলাদেশ ভিশনের অন্যতম লক্ষ্য এক বিলিয়ন মার্কিন ডলার রফতানি আয় করা।

রোববার ১৭তম অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস ঢাকা-২০১৭ এর পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে জুনাইদ আহমেদ পলক বিশেষ অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।
অনুষ্ঠানে ১৭টি ক্যাটাগরিতে বিজয়ীদের হাতে অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ড তুলে দেয়া হয়। এতে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি সচিব সুবীর কিশোর চৌধুরী, আইসিটি অধিদফতরের মহাপরিচালক বনমালী ভৌমিক, বেসিস সভাপতি মোস্তাফা জব্বার এবং বেসিসের জ্যেষ্ঠ সহ-সভাপতি ও ১৭তম অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস ঢাকা ২০১৭ এর আহ্বায়ক রাসেল টি আহমেদ।

এশিয়া প্যাসিফিক আইসিটি অ্যালায়েন্সভুক্ত (অ্যাপিকটা) দেশগুলোর সঙ্গে একযোগে কাজ করার আগ্রহ প্রকাশ করেন প্রতিমন্ত্রী বলেন, ২০০৮ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডিজিটাল বাংলাদেশ ঘোষণার মধ্য দিয়ে তরুণ প্রজন্মকে স্বপ্ন দেখাতে পেরেছেন। তাদের মনে আশার সঞ্চার করেছেন। যে কারণে মাত্র ১৩ বছরের মধ্যে দেশকে একটি প্রযুক্তিনির্ভর অর্থনীতির দিকে নিতে সক্ষম স্বপ্ন দেখেছি আমরা।

এবারই প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস অনুষ্ঠিত হচ্ছে। অংশ নিয়েছে অ্যাপিকটাভুক্ত ১৫টি দেশ- অস্ট্রেলিয়া, ব্রুনেই দারুসসালাম, চীন, চীনা তাইপে, হংকং, ইন্দোনেশিয়া, ম্যাকাও, মালয়েশিয়া, মিয়ানমার, পাকিস্তান, সিঙ্গাপুর, শ্রীলঙ্কা, থাইল্যান্ড, ভিয়েতনাম। অনুষ্ঠানে বিচারক, ইকনোমিক কো-অর্ডিনেটর, মনোনয়নপ্রাপ্ত অংশগ্রহণকারীর সংখ্যা দেশি-বিদেশিসহ ছয় শতাধিক।

এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের তথ্যপ্রযুক্তি খাতের বৃহত্তম সংগঠন অ্যাপিকটা, এই অঞ্চলের তথ্যপ্রযুক্তি খাতের উন্নয়নের পাশাপাশি সম্ভাবনাময় ও সফল উদ্যোগ, সফটওয়্যার ও তথ্যপ্রযুক্তিনির্ভর সেবার স্বীকৃতি দিতে প্রতিবছর অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডসের আয়োজন করে থাকে।