elish

রাজধানীর বাজারে ইলিশের সরবরাহ বাড়ছে। ফলে দামও কিছুটা কমতে শুরু করেছে। কোরবানির ঈদের পর অন্যান্য মাছের দাম যেখানে চড়া, সেখানে মাছের রাজা ইলিশের দাম কমায় কিছুটা স্বস্তি ফিরেছে ভোক্তাদের মাঝে।
অথচ এক মাস আগে দাম ঊর্ধ্বমুখী থাকায় বাজারে ইলিশের চাহিদা ছিল খুবই কম। বিক্রেতারা বলছেন, এবার উপকূলে প্রচুর ইলিশ ধরা পড়ছে। ফলে বাজারে সরবরাহ বাড়ায় দাম কমছে। ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) সোমবারের বাজার মূল্য তালিকায় দাম কমার চিত্র দেখা গেছে। তালিকায় দেখা যায়, প্রতি কেজি ইলিশের দাম এখন ৫শ’ থেকে ১ হাজার টাকা, যা এক মাস আগে ছিল ৬শ’ থেকে ১২শ’ টাকা। ফলে মাসের ব্যবধানে ইলিশের দাম কমেছে কেজিতে ১৬ দশমিক ৬৭ শতাংশ। সরেজমিন সোমবার সকালে মাছের পাইকারি আড়ত সোয়ারীঘাট গিয়ে দেখা গেছে, পাইকার ও আড়তদাররা দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে আসা ইলিশ হাঁক-ডাক দিয়ে বিক্রি করছেন।
সেখানের প্রায় প্রত্যেকটি আড়তে খুচরা বিক্রেতাদের ব্যাপক ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। দর কষাকষি করে এসব ইলিশ কিনে নিচ্ছেন রাজধানীসহ আশপাশ থেকে আসা খুচরা বিক্রেতারা। অন্যদিকে রাজধানীর কারওয়ানবাজার, শান্তিনগর কাঁচাবাজার ও মালিবাগে মাছের খুচরা বাজার ঘুরে দেখা গেছে, গত মাসের তুলনায় বাজারে ইলিশের সরবরাহ বেড়েছে। যেখানে বাজারের এক-দু’জন বিক্রেতার কাছে ইলিশ পাওয়া যেত, সেখানে প্রায় প্রত্যেকটি মাছ বিক্রেতা ইলিশ বিক্রি করছেন। আর দাম কিছুটা কম হওয়ায় সাধারণ ভোক্তাদের ইলিশের প্রতি ঝোঁক বেশি দেখা গেছে। বাজারের ব্যবসায়ীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, গত কয়েক দিনের তুলনায় সোমবার ইলিশ মাছের দাম কম ছিল। সরবরাহও ছিল প্রচুর। এক কেজি ওজনের একটি ইলিশ বিক্রি হয়েছে এক হাজার টাকা, যা গত সপ্তাহে ছিল ১২শ’ থেকে ১৩শ’ টাকা। ৮০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ বিক্রি হয়েছে ৭শ’ টাকায়, যা গত সপ্তাহে ছিল ৯শ’ টাকা। ৬শ’ থেকে ৭শ’ গ্রাম ওজনের ইলিশ বিক্রি হয়েছে ৪৫০ টাকা, যা আগে ছিল ৬শ’ টাকা। ৫শ’ গ্রাম ওজনের ইলিশের কেজি বিক্রি হয়েছে ৪৫০ টাকায়, যা আগে ছিল সাড়ে ৫০০ থেকে ৬০০ টাকা। কারওয়ানবাজারের মাছ বিক্রেতা মো. জসিম বলেন, চট্টগ্রাম থেকে আসা ইলিশের দাম কম। কিন্তু বরিশাল ও চাঁদপুর থেকে আসা ইলিশের দাম অনেক বেশি। তিনি বলেন, অনেকে দাম কম দেখে অতিরিক্ত মাছ কিনে মজুদ করে রাখছেন। ইলিশ ধরায় নিষেধাজ্ঞা শুরু হলে দাম বাড়িয়ে বিক্রি করবে। ইলিশের দাম কম থাকায় স্বস্তি প্রকাশ করেছেন সাধারণ ক্রেতারা। কারওয়ানবাজারে মাছ কিনতে আসা কসমেটিক্স ব্যবসায়ী সুজাউদ্দিন বলেন, বাজারে ইলিশের সরবরাহ একটু বেশি দেখা যাচ্ছে। দামও কিছুটা কম। তাই তিন হালি নিয়ে যাচ্ছি।